প্রথম দেখায় একটি জোরালো অনুভূতি সৃষ্টি করার গোপন রহস্য

February 19, 2018
Image

যা দেখছি তাই বাস্তব, তাই সত্য- এই কথাটি আমরা সবাই নিদ্বির্ধায় মেনে নেই, তাই না? প্রথম দেখার পর সৃষ্ট অনুভূতিগুলো তাই বেশ গুরুত্বপূর্ণ। আমরা প্রায় সময়ই এমন অনেক ব্যাক্তিত্ত্বসম্পন্ন মানুষদের দেখি যারা অন্যদের থেকে অনেক এগিয়ে। তারা যেখানেই যান, যে পথেই চলেন, সেখানেই সফলতা পান । আর বাকিদের পরবর্তী সুযোগ আসার অপেক্ষায় থাকতে হয়।!

আপনার প্রতি অন্যদের আকর্ষণ সৃষ্টি করার জন্য এই অবস্থায় আপনি কি করছেন? আপনি কি এমন কিছু করছেন যাতে লোকে আপনাকে মনে রাখে? এই প্রশ্নের উত্তর দেয়ার আগে আপনি নিজেকে প্রশ্ন করুন। আপনি কি জানেন আপনাকে কে কিভাবে দেখে? প্রথম দেখাতেই বুঝতে পারবে আপনি কে এবং কতটা গুরুত্বপূর্ণ হতে পারেন?

এটি আসলে কয়েকটা বিষয়ের উপর নির্ভর করে। তার মধ্যে উল্লেখযোগ্যগুলো হল:

১) পোশাক পরিচ্ছদ- সাধারণত আপনি কী ধরনের পোশাক পরেন, ২) বাচনিক ভঙ্গি- আপনি যখন কথা বলেন তখন আপনার বাহ্যিক অঙ্গভঙ্গি এবং কণ্ঠস্বর কেমন থাকে, ৩) অঙ্গভঙ্গি- কোনো কিছুর সংবাদ দেয়ার সময় আপনার কথার বলার ভঙ্গি কেমন থাকে, ৪) করমর্দন- আপনার হাত মেলানোর ধরন কেমন? এটা কি দুর্বল আর ভরসা করা যায় না এমন? নাকি দৃঢ় আর আত্মবিশ্বাসী? ৫) তাকানোর ভঙ্গি- আপনি তাদের কথা মনোযোগ দিয়ে শুনছেন কিনা, ৬) আদবকেতা- সর্বোপরি আপনার ব্যবহার ঠিক করছেন তো?

হয়তো আপনি এখন একজন কর্মকর্তা, কিন্তু কিছু দিন পর আপনি ম্যানেজার এর দায়িত্ব পাবেন। অথবা এক সময় আপনার নিজস্ব ব্যবসা প্রতিষ্ঠান হবে। আপনি যখন একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মালিক তখন অনেকের ভরসাস্থল হয়ে উঠবেন আপনি। তাই আপনাকে প্রথম দেখার পর যদি তাদের কাছে আপনাকে ভরসা করার যোগ্য মনে না হয় তবে ব্যবসায় লাভ করার জন্য আপনার অনেক কাঠ-খড় পোড়াতে হতে পারে।

একটু চিন্তা করুন, আপনাকে যত বেশি লোক পছন্দ করবে ততই বেশি লোক নিজ থেকে আপনার সাথে কাজ করতে চাইবে। আর আপনাকে পছন্দ করে এমন লোকের সংখ্যা যদি নেহায়েতই কম হয় তবে আপনার সাথে কাজ করা লোকের সংখ্যাও কম হবে। কাজেই অন্যের কাছে পছন্দনীয় হওয়ার গোপন রহস্য আপনার জানতে হবে!

সবর্দা নিজেকে বড় করে জাহির করার চেষ্টা করি। প্রথম সাক্ষাতেই সবকিছু বলে দেয়ার চেষ্টা করি যাতে একজন ব্যক্তি ভাবতে শুরু করে যে আমি কিংবদন্তি টাইপের কিছু। আমাদের জীবনের বাস্তব অভিজ্ঞতা থেকে দেখা যায় আমরা যা কিছু জানি ঠিক তাই করতে পারি। এর বাইরে কিছু করতে পারি না। আমরা চাকরির বর্ণনা না পরেই এবং না জেনেই নির্বাহী তকমা গায়ে মাখতে চাই। কিন্তু আমরা অনেকেই জানি না যে নিজেকে জাহির করতে আমরা কতোটাই না নিজের প্রতি গুরুত্ব দিয়ে থাকি। আর এই অজ্ঞতাই দুর্ভাগ্যক্রমে আমাদেরকে অন্যের কাছে উপেক্ষার পাত্রে পরিণত করতে বাধ্য করে।

আসল কথা হল আপনি যদি একটি বিষয়ের উপর জোর না দিয়ে প্রতিটি বিষয়ের উপর নজর দেন তাহলে আরেকজনের কাছে (আপনার পার্টনার বা ক্রেতা) আপনার একটি দিক নয় বরং সবগুলো দিকই পছন্দ হবে। আর এটি খুব গুরুত্বপূর্ণ কারণ আপনি যদি তাদের ভালো লাগার জন্য একটি কারণই রাখেন আর সেটা যদি তাদের পছন্দ না হয় তবে আপনাকে হতাশ হতে হবে। সমগ্র বিষয়ের উপর খেয়াল রাখুন যাতে তারা আপনাকে এবং আপনার প্রতিষ্ঠানকে পছন্দ করার অনেক কারণ খুঁজে পায়। তাহলেই দেখবেন অন্যেরা আপনার প্রতি কিভাবে আকৃষ্ট হয়। আর সেটা হলে আপনার সাফল্যও সহজে ধরা দেবে।

পূর্ববর্তী পোস্ট
কাঠমান্ডুতে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের বিমান বিধ্বস্ত
পরবর্তী পোস্ট
প্রচলিত বিপণন বাদ দিন; এবার নতুন কিছু করুন

Related Posts